1. sarifhafiz48@gmail.com : livenewsdesk desk : livenewsdesk desk
  2. mehedihasan.mhs078@gmail.com : Arif Molla : Arif Molla
  3. jmitsolutionbd@gmail.com : jmmasud :
  4. livenewsbd24@gmail.com : Mehedi Hasan : Mehedi Hasan
অতুলপ্রসাদ সেনের জন্মদিন আজ - Livenews24
বৃহস্পতিবার, ০১ ডিসেম্বর ২০২২, ০৩:৩৬ পূর্বাহ্ন
শিরোনাম :
কাপড় কিনতে ক্রেতা সেজে এসে কাপড় চুরি, ধরা পড়ে হলো জেল বিএনপি রাজনৈতিক দল নয়, পাকিস্তানের এজেন্ট: শেখ সেলিম ‘কৃষক আমাদের জাতির মেরুদণ্ড’- ড.আবদুস সোবহান গোলাপ জাতীয় গ্রিডে যুক্ত হলো ৪০০ মেগাওয়াট বিদ্যুৎ শেখ হাসিনার নেতৃত্বে বাংলাদেশকে একটি উন্নত দেশ হিসেবে গড়ে তুলতে হবে- শাজাহান খান আমার মনে হয় বিরোধীরা চোখ থাকতেও অন্ধ জানুয়ারি থেকে ব্যাংকে ডলার সংকট থাকবে না: সালমান এফ রহমান বিরামপুরে বিশ্ব এন্টিমাইক্রোবিয়াল সচেতনতা সপ্তাহ পালিত খবর প্রকাশের পর পলাশবাড়ীতে কাঠ পুড়িয়ে কয়লা তৈরীর কারখানা ভেঙে গুড়িয়ে দিলেন প্রশাসন মেসির জন্য অপেক্ষা ও প্রার্থনা কালকিনিতে দুই চেয়ারম্যানের সংঘর্ষ, বোমার আঘাতে ওসিসহ আহত ১০ সশস্ত্র বাহিনীর শহীদদের প্রতি প্রধানমন্ত্রীর শ্রদ্ধা সশস্ত্র বাহিনীর শহীদদের প্রতি রাষ্ট্রপতির শ্রদ্ধা জাতির আস্থার প্রতীক হিসেবে গড়ে উঠেছে সশস্ত্র বাহিনী সশস্ত্র বাহিনী জাতির গর্ব ও আস্থার প্রতীক: রাষ্ট্রপতি

অতুলপ্রসাদ সেনের জন্মদিন আজ

  • প্রকাশিত : বৃহস্পতিবার, ২০ অক্টোবর, ২০২২
  • ৩৫ শেয়ার এবং সংবাদটি পড়েছেন।

অনলাইন ডেস্ক।।

গীতিকার, গায়ক এবং কবি অতুলপ্রসাদ সেনের জন্মদিন আজ। ১৮৭১ সালের ২০ অক্টোবর ঢাকায় জন্মগ্রহণ করেন তিনি।

তার ‘মোদের গরব, মোদের আশা, আ মরি বাংলা ভাষা’ স্বদেশি ঘরানার গানটি ষাটের দশকে পূর্ববঙ্গের বাঙালি জাতীয়তাবাদী আন্দোলনের কর্মীদের উদ্দীপ্ত করত।

অতুলপ্রসাদ সেনের পরিবারের আদি নিবাস ছিল ফরিদপুরের দক্ষিণ বিক্রমপুরের মগর গ্রামে। ছোটবেলায় বাবাকে হারিয়ে মাতামহ কালীনারায়ণ গুপ্তের কাছে বেড়ে ওঠেন। মাতামহ ছিলেন ভগবদ্ভক্ত, গায়ক ও ভক্তিগীতি রচয়িতা। এসব গুণ অতুলপ্রসাদের মধ্যেও সঞ্চারিত হয়।

অতুলপ্রসাদ প্রবেশিকা পাস করে প্রেসিডেন্সি কলেজে ভর্তি হলেও বিলেত চলে যান এবং ব্যারিস্টার হয়ে ফেরেন। দেশে ফিরে কলকাতা ও রংপুরে কিছুদিন আইন ব্যবসা করে লক্ষে চলে যান। সেখানেই আইনজীবী হিসেবে খ্যাতি পান। কিশোর বয়সে তার সংগীত সাধনা শুরু।

তিনি রবীন্দ্রনাথ ঠাকুরের অন্তরঙ্গ সান্নিধ্য লাভ করেছিলেন। বাংলা গানে ঠুমরির প্রচলন যারা ঘটান তিনি তাদের পথিকৃৎ। তার তৈরি সুরে কীর্তন ও বাউল ঢঙের প্রভাব দেখা যায়। তিনি ভৈরবী, খাম্বাজ, পিলু, বেহাগ, কাফিসহ বিভিন্ন রাগের ওপর সংগীত রচনা করেছেন।

তার লেখা গানে প্রকৃতি এসেছে ঘুরেফিরে। স্নিগ্ধ, কোমল শব্দ চয়ন করে তার সঙ্গে মিল রেখে সুর সৃষ্টিতে তিনি দক্ষ ছিলেন। তার রচিত গানগুলো তিন ভাগে ভাগ করা যায়স্বদেশি সংগীত, ভক্তিগীতি ও প্রেমের গান।

তার রচিত গানের সংখ্যা প্রায় ২০০। তার গান নিয়ে প্রকাশিত হয়েছে ‘কয়েকটি গান’ ও ‘গীতিগুঞ্জ’ নামে দুটি সংকলন। ১৯৩৪ সালের ২৬ আগস্ট লক্ষে শহরে তিনি মৃত্যুবরণ করেন।

আপনার পছন্দের লিংকের মাধ্যমে সংবাদটি শেয়ার করুন, আমাদের সাথেই থাকুন

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

আরও সংবাদ দেখুন
© All rights reserved © 2021
Design & Development By : JM IT SOLUTION